>> জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার ফল প্রকাশ ৩০ ডিসেম্বর : শিক্ষামন্ত্রী >> ইয়েমেনের রাজধানী সানায় আবার সৌদি বিমান হামলা নিহত ৩ >> হবিগঞ্জে ট্রাক-পিকআপ সংঘর্ষে ২ জন নিহত

চিটাগং-এর বিদায় নিজেদের আশা বাঁচিয়ে রাখলো রাজশাহী

নিউজডেস্ক, বাংলাদেশনিউজ

BPL Rajshahi Kingsবাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল) টুয়েন্টি টুয়েন্টি ক্রিকেটের পঞ্চম আসরের লিগ পর্ব থেকেই মিশন শেষ করতে হবে চিটাগং ভাইকিংসকে। চট্টগ্রাম পর্বের নবম ও টুর্নামেন্টের ৩৩তম ম্যাচে রাজশাহী কিংসের কাছে ৩৩ রানে হেরে শেষ চারের খেলার স্বপ্ন শেষ হয়ে গেল চিটাগং ভাইকিংসের। আর এমন জয়ে শেষ চারে খেলার স্বপ্ন বাঁচিয়ে রাখলো গতবারের রানার-আপ রাজশাহী।

চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরি স্টেডিয়ামে টস জিতে প্রথমে ব্যাটিং করতে নামে রাজশাহী। দ্বিতীয় ওভারের শেষ বলে ওপেনার মোমিনুল হককে হারায় তারা। ৭ রান করে পেসার তাসকিন আহমেদের বলে আউট হন মোমিনুল।

শুরুর ধাক্কা ভুলিয়ে দেয়ার চেষ্টা করেছেন ইংল্যান্ডের লুক রাইট ও জাকির হোসেন। তাদের ৩১ রানের জুটি দলকে ৪১ রানে পৌঁছে দেয়। ভালো শুরু করেও ১১ বলে ১৭ রান করে থামেন জাকির। এরপর মুশফিকুর রহিমকে নিয়ে দলের রানের চাকা সচল রাখেন রাইট। কিন্তু দলীয় ৬৩ রানে থামতে হয় রাইটকে। ২১ বলে ২৫ রান করেন তিনি। কিছুক্ষণ পর বিদায় নেন মুশিও। ৪টি চার ও ১টি ছক্কায় ২২ বলে ৩১ রান করেন তিনি।

দলীয় ৮৬ রানে চতুর্থ ব্যাটসম্যান হিসেবে মুশফিকুরকে হারানোর পর উইকেটে আসেন অধিনায়ক ওয়েষ্ট ইন্ডিজের ড্যারেন স্যামি। যথারীতি এবারও মারমুখী মেজাজে তিনি। ২টি চার ও ৩টি ছক্কায় ২৫ বলে ৪০ রান করেন স্যামি। পাশাপাশি নিউজিল্যান্ডের জেমস ফ্রাঙ্কলিনের ৩০ বলে ৩০ রানের সুবাদে ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ১৫৭ রান করে রাজশাহী। চিটাগং-এর ইংল্যান্ডের খেলোয়াড় লুইস রিসি ৩ উইকেট নেন।

জয়ের জন্য ১৫৮ রানের টার্গেটে এবারও উড়ন্ত সূচনার ইঙ্গিত দিচ্ছিলেন চিটাগং-এর অধিনায়ক নিউজিল্যান্ডের লুক রঞ্চি। ইনিংসের প্রথম তিন বল থেকে ৫টি অতিরিক্ত রানের সাথে দু’টি বাউন্ডারিতে ১৩ রান তুলে নেন রঞ্চি। কিন্তু চতুর্থ ডেলিভারিতেই বিদায় নেন তিনি। ৪ বলে ৮ রান করেন রঞ্চি।

এরপর ৩৮ রানের জুটি গড়ে দলকে খেলায় ফেরান আরেক ওপেনার সৌম্য সরকার ও আনামুক হক। এরমধ্যে ১৩ রান অবদান রেখে আউট হন সৌম্য। বেশিদূর যেতে পারেননি আনামুলও। ২৩ রান করেন তিনি। অবশ্য চিটাগং-এর পরের দিকের কোন ব্যাটসম্যানই বড় ইনিংস খেলতে পারেননি। তাই ১২৪ রানেই গুটিয়ে যায় চিটাগং ভাইকিংস।

দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ২৭ রান করেন দক্ষিণ আফ্রিকার ভ্যান জাইল। এছাড়া জিম্বাবুয়ের সিকান্দার রাজা ১৭ ও তানবীর হায়দার ১৩ রান করেন। রাজশাহীর বাঁ-হাতি পেসার কাজী অনিক ৪টি উইকেট নেন। টি-২০ ফরম্যাটে এটিই তার প্রথম ম্যাচ। ম্যাচ সেরা হয়েছেন রাজশাহীর স্যামি।

এই জয়ে ১০ খেলায় ৪ জয়ে ৮ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের পঞ্চমস্থানে উঠে এলো রাজশাহী। আর ১০ খেলায় ২ জয়ে ৫ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের তলানিতে চিটাগং।

সংক্ষিপ্ত স্কোর

রাজশাহী কিংস
১৫৭/৬, ২০ ওভার (স্যামি ৪০, মুশফিকুর ৩১, রিসি ৩/৩৩)।

চিটাগং ভাইকিংস
১২৪/১০, ১৯.২ ওভার (ভ্যান জাইল ২৭, আনামুল ২৩, অনিক ৪/১৭)।

ফল : রাজশাহী কিংস ৩৩ রানে জয়ী।
ম্যাচ সেরা : ড্যারেন স্যামি (রাজশাহী কিংস)।

bdn24x7.com, বাংলাদেশনিউজ, এসএস, ২৯.১১.২০১৭


মতামত দিন