>> জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার ফল প্রকাশ ৩০ ডিসেম্বর : শিক্ষামন্ত্রী >> ইয়েমেনের রাজধানী সানায় আবার সৌদি বিমান হামলা নিহত ৩ >> হবিগঞ্জে ট্রাক-পিকআপ সংঘর্ষে ২ জন নিহত

ভারতের বাইরে পদ্মাবতী সিনেমার মুক্তি ঠেকানোর আবেদন খারিজ

নিউজডেস্ক, বাংলাদেশনিউজ

Padmavatiভারতের উচ্চ আদালত বিশ্বব্যাপী বলিউড সিনেমা পদ্মাবতীর মুক্তি ঠেকানোর আবেদন মঙ্গলবার খারিজ করে দিয়েছে। চলতি মাসেই এই নিয়ে তিন বার ওই নিষেধাজ্ঞার আবেদন খারিজ হয়ে গেল।

পাশাপাশি, ওই ছবির সমালোচনায় যে তিন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী সরব হয়েছিলেন, মঙ্গলবার তাঁদের ভূমিকাকেও ভর্ৎসনা করে শীর্ষ আদালত। আদালতের মন্তব্য, ‘সরকারের দায়িত্বশীল পদে থেকে এমন ইস্যুতে মন্তব্য করাটা মোটেই উচিত নয়। বিষয়টি যখন সেন্ট্রাল বোর্ড অব ফিল্ম সার্টিফিকেশন (সিবিএফসি)-এর বিবেচনাধীন রয়েছে, তখন সেই ছবিকে ছাড়পত্র দেওয়া হবে কি না তা নিয়ে সরকারি পদে থাকা ব্যক্তিরা কী ভাবে মন্তব্য করেন? এ তো তাদের সিদ্ধান্তকে রীতিমতো প্রভাবিত করা। ’ সুপ্রিম কোর্ট বলেছে, ‘সেন্সর হওয়ার আগে এখনই কারো সিনেমাটির বিচার করা উচিত নয়’।

এর আগে পদ্মাবতী বিতর্কে রাজস্থান, গুজরাট এবং মধ্যপ্রদেশ— এই তিন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীরা জানিয়েছিলেন, সেন্সর বোর্ড ছাড়পত্র দিলেও তাঁদের রাজ্যে ওই ছবি দেখানোর অনুমতি দেওয়া হবে না।

আদালতের রায়ের আগেই ঐতিহাসিক ঘটনার ওপর ভিত্তি করে নির্মিত এই চলচ্চিত্রটির বিরুদ্ধে সহিংস বিক্ষোভ শুরু হয়েছে। বলা হচ্ছে, সিনেমাটিতে এক হিন্দু রানী ও এক মুসলিম শাসকের মধ্যে প্রেম-ভালবাসা দেখানো হয়েছে।

ভারতে সিনেমাটি পহেলা ডিসেম্বর মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল। কিন্তু সেন্সরবোর্ড থেকে অনুমতি না পাওয়ায় মুক্তির দিন পিছিয়ে দেয়া হয়েছে।

প্রধান বিচারপতি দিপক মিশরার নেতৃত্বাধীন বেঞ্চ জানিয়েছে, ‘দায়িত্ববান লোকরাই ক্ষমতায় আছেন এবং সংশ্লিষ্ট সরকারি দপ্তরই এ ব্যাপারে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেবেন। এ ব্যাপারে মন্তব্য করা আইনের শাসনের পরিপন্থী।’

এদিকে মধ্যপ্রদেশ, গুজরাট ও রাজস্থানের মুখ্যমন্ত্রীরা যখন সর্বোচ্চ আদালতের তোপের মুখে, তখন বিহারের মুখ্যমন্ত্রীও গলা মেলালেন ‘পদ্মাবতী’ নিষিদ্ধ করার সুরে। নীতীশ কুমার বলেছেন, ‘‘যতক্ষণ না পদ্মাবতীর পরিচালক ও প্রযোজকরা বিতর্ক মেটানোর পর্যাপ্ত পরিমাণ ব্যাখ্যা দিচ্ছেন, ততক্ষণ বিহারেও পদ্মাবতী দেখানো হবে না।’’

bdn24x7.com, বাংলাদেশনিউজ, এসএস, ২৮.১১.২০১৭


Comments are closed.