>> জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষার ফল প্রকাশ ৩০ ডিসেম্বর : শিক্ষামন্ত্রী >> ইয়েমেনের রাজধানী সানায় আবার সৌদি বিমান হামলা নিহত ৩ >> হবিগঞ্জে ট্রাক-পিকআপ সংঘর্ষে ২ জন নিহত

মার্কিন ক্ষেপণাস্ত্র হামলাতেও ধ্বংস হচ্ছে না সিরিয়ার ট্যাঙ্ক

নিউজডেস্ক, বাংলাদেশনিউজ

Syrian Steel Beast 1ইরাক ও সিরিয়ার যুদ্ধে প্রমাণিত হয়েছে, আমেরিকা ও ইউরোপের (ব্রিটিশ, ফ্রেন্স, জার্মান) অত্যাধুনিক ট্যাংক বিধ্বংসী ক্ষেপণাস্ত্র দিয়েও রাশিয়ার লেটেষ্ট ভার্সানের টি-৯০ ট্যাংক ধ্বংস করা সম্ভব হচ্ছে না। এমন কি বহুল আলোচিত মার্কিন টাও ক্ষেপণাস্ত্রের আঘাতে ট্যাংকে শরীরে দাগ পড়লেও ব্যবহারের অনুপযোগী হয়ে পড়ছে না।

কিন্তু তার চেয়েও বিস্ময় সৃষ্টি করেছে সিরিয়ার টি-৭২ আই ট্যাংক। এক সময় টি-৭২ ট্যাংক বিশ্বের শ্রেষ্ঠ ট্যাংকগুলোর একটি হিসেবে বিবেচিত হ’ত। এসব ট্যাংক সোভিয়েত আমলে তৈরী এবং বহু আগেই রাশিয়া এ ট্যাংক ব্যবহার বন্ধ করে দিয়েছে। কিন্তু সিরিয়ার সামরিক প্রকৌশলীরা নিজেদের উদ্ভাবিত প্রযুক্তি ব্যবহার করে সেই পুরোন আমলের টি-৭২ ট্যাংককেই ক্ষেপণাস্ত্র প্রতিরোধী করে তুলেছে। সিরিয়ার চলমান যুদ্ধে একাধিকবার প্রমাণিত হয়েছে, আমেরিকার সরবরাহকৃত টাও (TOW) ট্যাংক বিধ্বংসী ক্ষেপণাস্ত্রের আঘাতে এ ট্যাাংকের তেমন কোন ক্ষতি হয়নি। প্রতিরক্ষা জগতে এ ট্যাংক “সিরিয়ার ইস্পাত ষাঁড়” (Syrian Steel Beast) খেতাব পেয়েছে।

প্রধানতঃ সিরিয়ার প্রেসিডেন্সিয়াল গার্ড বাহিনী এসব ট্যাংক ব্যবহার করছে। এ পর্যন্ত কোন সন্ত্রাসী গোষ্ঠীই সিরিয়ার এ শ্রেণির ট্যাঙ্ক ধ্বংস করতে পারে নি।

সিরিয়ার সেনাবাহিনীর ট্যাংক ইউনিটের পক্ষ থেকে প্রকাশিত এক ভিডিওতে দেখা যায়, সন্ত্রাসী গোষ্ঠী জাবহাত ফতেহ আল-শাম সিরিয়ার ‘এইন তারমা’ এলাকায় একাধিক ট্যাংকে আমেরিকার সরবরাহকৃত টাও ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালালেও ট্যাঙ্কগুলো ধ্বংস করতে ব্যর্থ হয়। হামলার পরও ‘টি৭২আই’ শ্রেণির সিরিয় ট্যাঙ্কের তেমন কোনো ক্ষতিই হয়নি।

ভিডিওতে দেখা যায় ‘এইন তারমা’ এলাকায় হামলার পর সিরিয়ার সেনা সদস্যরা বলছে, ‘ওরা আমাদের নিশ্চিহ্ন করতে চেয়েছিল, কিন্তু তাদের সে লক্ষ্য সফল হয় নি’।

bdn24x7.com, বাংলাদেশনিউজ, এসএস, ১৬.০৮.২০১৭


Comments are closed.