>> ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে ৬০ কিলোমিটার যানজট >> লিবিয়ায় জাহাজের কন্টেইনার থেকে ১৩ অভিবাসন প্রত্যাশীর লাশ উদ্ধার >> টাঙ্গাইল মির্জাপুরে গরু ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে হত্যা

এমপি লিটন হত্যার প্রধান সন্দেহভাজন গ্রেপ্তার

নিউজডেস্ক, বাংলাদেশনিউজ

gaibandha mp litonগাইবান্ধা-১ (সুন্দরগঞ্জ) আসনের সংসদ সদস্য (এমপি) মঞ্জুরুল ইসলাম লিটন হত্যার ঘটনায় প্রধান সন্দেহভাজন আশরাফুল ও তাঁর ‘সহযোগী’ জহুরুল ইসলামকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব)।

বুধবার রাতে রাজধানীর বাড্ডা এলাকায় অভিযান চালিয়ে ওই দুজনকে গ্রেপ্তার করা হয়।

বৃহস্পতিবার র‍্যাব-১-এর লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের সহকারী পরিচালক সহকারী পুলিশ সুপার মিজানুর রহমান এ তথ্য জানিয়েছেন। তিনি জানান, আশরাফুল সুন্দরগঞ্জ উপজেলা জামায়াতে ইসলামীর আমির হাজি ইউনুসের ছেলে।

গত ৩১ ডিসেম্বর সন্ধ্যা পৌনে ৬টার দিকে সুন্দরগঞ্জ উপজেলার সাহাবাজপুর গ্রামের নিজ বাড়িতে গুলিবিদ্ধ হন এমপি লিটন। ওই রাত সাড়ে ৭টার দিকে রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত ঘোষণা করেন। এ ঘটনায় অজ্ঞাতপরিচয় পাঁচজনকে আসামি করে সুন্দরগঞ্জ থানায় একটি মামলা করা হয়।

প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, ঘটনার সময় এমপি লিটন ঘরে বসে টিভি দেখছিলেন। এ সময় মোটরসাইকেলে করে তিন যুবক তাঁর বাড়িতে আসে। তারা হেলমেট পরা অবস্থায় ছিল। একজন মোটরসাইকেল নিয়ে বাইরে দাঁড়িয়ে ছিল। অপর দুই যুবক ঘরে ঢুকেই এমপি লিটনকে লক্ষ্য করে এলোপাতাড়ি গুলি ছোড়ে। এরপর তারা দৌড়ে বাড়ি থেকে বের হয়ে মোটরসাইকেলে করে পালিয়ে যায়।

এমপি লিটন হত্যায় জামায়াত জড়িত বলে শুরু থেকেই আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হচ্ছিল। ইতোমধ্যে এ মামলায় জামায়াত-শিবিরের কয়েকজন নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

bdn24x7.com, বাংলাদেশনিউজ, এসএস, ১২.০১.২০১৬


Comments are closed.