>> শনিবার সকালে উত্তর কোরিয়া আবার ব্যালিষ্টিক ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে >> বিচার প্রার্থীদের প্রতি আরো মানবিক হতে বিচারক ও আইনজীবীদের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর আহ্বান >> ৪৭ দিন পর হিমালয় থেকে জীবন্ত উদ্ধার নিখোঁজ অভিযাত্রী >> ঝালকাঠিতে পিস্তল ও গুলিসহ ১ জন আটক >> কুমিল্রায় মোটরসাইকেলের দুর্ঘটনায় দুই ভাই নিহত

সকল স্থানে জিয়ার নাম যথাযথভাবে প্রতিস্থাপন করা হবে: দুদু

নিউজডেস্ক, বাংলাদেশনিউজ

dudu-19বিএনপি ক্ষমতায় আসলে যেসব যায়গা থেকে শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের নাম মুছে ফেলা হয়েছে সেসব নাম যথাযথভাবে প্রতিস্থাপন করা হবে বলে জানান বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু। পাশাপাশি গোপালগঞ্জের নাম পরিবর্তন করে মুজিবনগর করা হবে বলেও ঘোষণা দিয়েছেন তিনি।

বুধবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের ভিআইপি লাউঞ্জে ‘ষড়যন্ত্র ও ওয়ান ইলাভেনের সরকার’ শীর্ষক আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন। ডেমোক্র্যাটিক মুভমেন্ট নামের একটি সংগঠন আলোচনার সভার আয়োজন করে।

দুদু বলেন, ‘আপনারা পিরোজপুর জেলার জিয়ানগর উপজেলার নাম পরিবর্তন করে ইন্দুরকানী করেছেন। ইন্দুরকানী কি জিয়াউর রহমানের চেয়ে বেশি সন্মানিত ব্যক্তি। আপনারা গোপালগঞ্জের নাম পরিবর্তন করে মুজিবনগর করছেন না কেন?’

তিনি বলেন, ‘বিএনপি ক্ষমতায় আসলে গোপালগঞ্জের নাম পরিবর্তন করে মুজিবনগর করবো। তবে আপনাদের সাথে আলোচনা করেই করবো। কারণ গোপালের চেয়ে মুজিবুর রহমান অনেক সন্মানিত ব্যক্তি।’

বিএনপির এই নেতা বলেন, ‘আপনারা শেখ মুজিবুর রহমানকে ‘জাতির জনক’ বলেন, ‘বঙ্গবন্ধু’ বলেন, অথচ তার জন্মস্থানের নাম রাখলেন গোপালের নামে। গোপালগঞ্জের নাম পরিবর্তন করে মুজিবনগর করার জন্য আপনাদেরকে আমরা প্রস্তাব দিবো। আলোচনা করে নাম পরিবর্তন করবো।’

এসময় ঢাকার নাম পরিবর্তন করে জিয়া সিটি করা হবে জানিয়ে তিনি বলেন, ‘ইন্দুরকানী কি জিয়াউর রহমান থেকে বড়? আপনাদের এত ছোট মন মানসিকতা কেন?’

যেসব স্থানে জিয়াউর রহমানের নাম মুছে ফেলা হয়েছে, বিএনপি ক্ষমতায় আসলে এসব নাম যথাযথভাবে প্রতিস্থাপন করা হবে বলেও জানান তিনি।

জিয়াকে খাটো করলে স্বাধীনতাকে খাটো করা হবে উল্লেখ করে ছাত্রদলের সাবেক এই সভাপতি বলেন, ‘বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া ও দলের সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমান শেখ মুজিবের মাজার জিয়ারত করেছেন। শেখ মুজিবকে বিএনপি কখনও ছোট করে দেখে না, যথাযথ মর্যাদা দেয়। অথচ আপনারা (আওয়ামী লীগ) জিয়াকে ছোট করেন এটা ঠিক না।’

সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়ে বিএনপির এই নেতা বলেন, ‘পুলিশ না রেখে আপনাদের মন্ত্রীরা রাস্তায় নামেন তো। এমন পরিস্থিতিতে আওয়ামী লীগ নামে রাস্তায় কাউকে পাওয়া যাবে না। পুলিশ না থাকলে কি হয় আপনারাও জানেন। কাল বিএনপি ক্ষমতায় অসলে কি হবে আপনারাও জানেন।’

মঙ্গলবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বক্তব্যের প্রসঙ্গে শামসুজ্জামান দুদু বলেন, ‘আপনি বলেছেন আগুন যারা দিয়েছে তাদের বিচার হবে গণআদালতে। এই বক্তব্যের জন্য আপনাকে ধন্যবাদ দিবো। গণআদালত মানে স্বচ্ছ নির্বাচন, ওখানে বিচার হবে। আমরা সঠিক নাকি আপনারা সঠিক।’

আয়োজক সংগঠনের শাহাদাত হোসেন সেলিমের সভাপতিত্বে এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন ঢাকা বিশ্ববিদালয়ের সাবেক উপাচার্য এমাজউদ্দিন আহমেদ।

bdn24x7.com, বাংলাদেশনিউজ, এসএস, ১১.০১.২০১৬


Comments are closed.