>> সিলেট শিবপুরে জঙ্গী বিরোধী অভিযান চলছে গুলি ও বিস্ফোরণের শব্দ শোনা যাচ্ছে >> নারায়ণগঞ্জে পিকআপভ্যানের চাপায় পুলিশ কনস্টেবল নিহত >> ভারতের মনিপুরে বাস দুর্ঘটনায় নিহত ১০ আহত ২৫

আশুলিয়ায় শ্রমিক অসন্তোষ মামলা বিজিবি মোতায়েন

নিউজডেস্ক, বাংলাদেশনিউজ

bgbশ্রমিক অসন্তোষের মুখে কারখানা বন্ধ ঘোষণার ঘটনায় সাভারের আশুলিয়ার তৈরি পোশাক কারখানার শ্রমিকদের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দিয়েছে। ওই এলাকার আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে বুধবার সকালে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) ১৫টি প্লাটুন মোতায়েন করা হয়।

ঢাকার কাছে আশুলিয়ায় উইন্ডি অ্যাপারেলস নামের একটি তৈরি পোশাকের কারখানায় ১২১ জন শ্রমিককে সাময়িক বরখাস্ত করেছে কারখানা কর্তৃপক্ষ। এ শ্রমিকদের কেন স্থায়ীভাবে বরখাস্ত করা হবে না সে নোটিসও দিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

সপ্তাহ-খানেক আগে এ কারখানা থেকে মজুরি বৃদ্ধিসহ অন্যান্য দাবিতে শ্রমিক অসন্তোষ শুরু হয়েছিল। টানা আট দিন আন্দোলন-বিক্ষোভ চালিয়ে আসছিলেন পোশাক শ্রমিকরা। অসন্তোষ নিরসনে শ্রমিক নেতাদের সঙ্গে একাধিক বৈঠকও করে সরকার পক্ষ। এরপরেও শ্রমিকরা কাজে যোগ না দেয়ায় বুধবার থেকে আশুলিয়া শিল্পাঞ্চলের ৫৫টি কারখানা বন্ধের ঘোষণা দেয় বিজিএমইএ। বুধবার সকালে ৫৫টি কারখানার প্রধান ফটকে এসে বন্ধের নোটিশ দেখে ফিরে গেছেন শ্রমিকরা।

এদিকে শ্রমিক অসন্তোষের ঘটনায় পৃথক মামলা দায়ের করেছে দুটি কারখানার কর্তৃপক্ষ। বুধবার দুপুরে আশুলিয়ার ফাউন্টেন গার্মেন্টস ও উইন্ডি এপারেলস কারখানা কর্তৃপক্ষ ৩৯ জন শ্রমিকের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনামা প্রায় আড়াইশ শ্রমিকের বিরুদ্ধে মামলা দুটি দায়ের করেন। আশুলিয়া থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) শাহাদাত হোসেন মামলার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

জানা গেছে, ফাউন্টেন গার্মেন্টস কারখানার কর্মকর্তা নাজমুল হক বাদি হয়ে ১৮ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাতনামা ৬০-৭০ জনের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করেন। এ ছাড়া উইন্ডি কারখানার সহকারী মহাব্যবস্থাপক মাসুদ বাদি হয়ে কারখানার শ্রমিক জীবন মিয়া, আসাদুজ্জামান, হাফিজুর রহমান, সুরুজ মিয়া, সুলতানা আক্তারসহ ২১ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞানামা শতাধিক শ্রমিককে আসামী করে অপর মামলাটি দায়ের করেন।

মামলা দায়েরের পর মামলার আসামী উইন্ডি গ্রুপের দুই শ্রমিককে আটক করেছে পুলিশ। আটককৃতরা হলেন-কাটিং অপারেটর মাসুদ (২৮) ও কাটিং সহকারী বাকের (২৫)।

তবে র‌্যাব পুলিশসহ আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর বিপুল সদস্যের উপস্থিতির কারণে বুধবার সকাল থেকে বিক্ষোভ কিংবা অন্য কোনো কর্মসূচি পালন করতে পারেননি শ্রমিকরা। পরিস্থিতি শান্ত রাখতে বাইপাইল-আব্দুল্লাহপুর সড়কে যানচলাচলে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে ঢাকা জেলা পুলিশ। সড়কটির আশপাশের এলাকায় গণজমায়েত থেকেও বিরত থাকতে মাইকিং করা হয়েছে।

শিল্প পুলিশ আশুলিয়া জোনের পরিচালক মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে পর্যাপ্তসংখ্যক পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

গত সপ্তাহে আশুলিয়ার জামগড়া উইন্ডি অ্যাপারেলস নামের কারখানা থেকে চলমান শ্রম অসন্তোষের সূত্রপাত হয়। ১২ ডিসেম্বর থেকে মজুরি বৃদ্ধিসহ ১৬ দফা দাবিতে শ্রমিকরা কর্মবিরতি পালনসহ আন্দোলন-বিক্ষোভ শুরু করেন। তারপর থেকে ন্যুনতম মজুরি বাড়ানোর দাবীসহ বিভিন্ন অজুহাতে মালিকপক্ষ কর্তৃক শ্রমিক ছাঁটাই বন্ধ, কোনো কারণে ছাঁটাই হলে শ্রমিককে নিয়ম অনুযায়ী প্রাপ্য পরিশোধ এবং শ্রমিকের ছুটিকালীন বেতন বহাল রাখার দাবিতে টানা আট দিন ধরে আন্দোলন করছেন আশুলিয়া এলাকার পোশাক শ্রমিকরা।

bdn24x7.com, বাংলাদেশনিউজ, এসএস, ২২.১২.২০১৬


Comments are closed.